এমপিদের শপথবাক্যে যা ছিল

সংসদ সদস্য (এমপি) হিসেবে দায়িত্বপ্রাপ্ত কাজ আইন অনুযায়ী ও বিশ্বস্তসতার সঙ্গে করার জন্য শপথবাক্য পাঠ করেছেন একাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনে নির্বাচিত সংসদ সদস্যরা। আজ বৃহস্পতিবার বেলা ১১টা ১৫ মিনেট জাতীয় সংসদ ভবনের শপথ কক্ষে ড. শিরীন শারমিন চৌধুরী এই শপথবাক্য পাঠ করান। এ সময় প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনাসহ একাদশ সংসদের এমপিরা নিজ নিজ নাম উচ্চরণ করে স্পিকারের সঙ্গে সঙ্গে পড়তে থাকেন-‘সশ্রদ্ধচিত্তে শপথ (বা দৃঢ়ভাবে ঘোষণা) করিতেছি যে,আমি যে কর্তব্যভার গ্রহণ করিতে যাইতেছি, তাহা আইন -অনুযায়ী ও বিশ্বস্ততার সহিত পালন করিব। আমি বাংলাদেশের প্রতি অকৃত্রিম বিশ্বাস ও আনুগত্য পোষণ করিব, এবং সংসদ-সদস্যরূপে আমার কর্তব্য পালনকে ব্যক্তিগত স্বার্থের দ্বারা প্রভাবিত হইতে দেব না।’ এর আগে প্রথমে স্পিকার ড. শিরীন শারমিন চৌধুরী একাদশ সংসদ নির্বাচনে এমপি নির্বাচিত হওয়ায় নিজেই নিজের শপথ গ্রহণ করেন। পরে বেলা ১১টা ১৫ মিনিটে নবনির্বাচিত সংসদ সদস্যদের শপথবাক্য পাঠ করান তিনি। এরপর নবনির্বাচিত এমপিরা শপথপত্রে আজকের তারিখসহ স্বাক্ষর করেন এবং নিজ নিজ পরিচয়পত্র গ্রহণ করেন। গত মঙ্গলবার নতুন নির্বাচিত সংসদ সদস্যদের নামে গেজেট প্রকাশ করেছে নির্বাচন কমিশন। গেজেট প্রকাশের তিন দিনের মধ্যে সংসদ সদস্যদের শপথগ্রহণের বাধ্যবাধকতা রয়েছে। নির্বাচিতরা শপথ না নিলে ৯০ দিনের মধ্যে তাদের আসন শূন্য হবে। ওই আসনে ফের উপনির্বাচন হবে। প্রসঙ্গত, গত ৩০ ডিসেম্বর দেশে অনুষ্ঠিত হয়েছে একাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচন। এই নির্বাচনে বিপুল বিজয় পেয়েছে ক্ষমতাসীন আওয়ামী লীগ। দলটির নেতৃত্বাধীন মহাজোট পেয়েছে ২৮৮টি আসন। একক সংখ্যাগরিষ্ঠতা পাওয়ায় দলটি টানা তৃতীয়বারের মতো সরকার গঠন করতে যাচ্ছে। এই নির্বাচনে জাতীয় ঐক্যফ্রন্ট পেয়েছে ৭টি আসন। এর মধ্যে বিএনপি এককভাবে পেয়েছে ৫টি ও গণফোরাম ২ টি। নির্বাচনে এককভাবে ২২টি আসন পেয়ে দ্বিতীয় বৃহত্তম দল হয়েছে জাতীয় পার্টি।