খাটের নিচে শিশুর লাশ, বাবা পলাতক

গাজীপুর জেলার শ্রীপুর পৌর এলাকার গিলারচালা গ্রামে ঘরের খাটের নিচ থেকে মনিরা খাতুন (৬) নামে এক শিশুর লাশ উদ্ধার করেছে শ্রীপুর থানা পুলিশ। ঘটনার পর থেকে শিশুর বাবা পলাতক রয়েছে। রোববার রাত পৌনে ৯টার দিকে ভাড়া বাড়ির খাটের নিচ থেকে এ লাশ উদ্ধার করা হয়। খোঁজ নিয়ে জানা যায়, নিহত মনিরা জেলার কাপাসিয়া উপজেলার হালজোড় গ্রামের রফিকুল ইসলামের মেয়ে। রফিকুল ইসলাম স্বামী সন্তানসহ শ্রীপুর পৌর এলাকার গিলারচালা গ্রামের হাজী ইয়াসিন মিয়ার ভাড়া বাড়িতে থাকতেন। স্থানীয় ডেনিম্যাক গার্মেন্টস লিমিটেড কারখানায় স্বামী-স্ত্রী দুজনই চাকরি করতেন। শিশু মনিরা স্থানীয় মোহাম্মদ আলী কিন্ডার গার্টেনের প্লে শ্রেণির শিক্ষার্থী। শ্রীপুর থানা উপপরিদর্শক (এসআই) মাহমুদুল হাসান জানান, সন্ধ্যায় শিশুটির মা নাসরিন আক্তার মুঠোফোনে মনিরা নিখোঁজের বিষয়টি থানায় জানান। পরে পুলিশ ঘটনাস্থলে পৌঁছে ভাড়া বাড়ির ঘরের ভেতর খোঁজাখুজি শুরু করে। একপর্যায়ে ঘরের খাটের নিচে বড় পাতিলের (ডেগ) ভেতর থেকে মরদেহ উদ্ধার করা হয়। শ্রীপুর থানার ভারপ্রাপ্ত কমকর্তা (ওসি) জাবেদুল ইসলাম জানান, স্বামী-স্ত্রীর মধ্যে দীর্ঘদিন কলহ চলছিল। ঘটনার পর থেকে শিশুটির বাবা রফিকুল ইসলাম পলাতক রয়েছে। ধারণা করা হচ্ছে শিশুটিকে হত্যার পর লাশ ঘরের ভেতর রেখে তিনি পালিয়ে গেছেন। শিশুটির বাবাকে আটক করার চেষ্টা চলছে।